শনিবার, ২৪ জুলাই ২০২১, ০৩:৫০ অপরাহ্ন

তদন্ত হোক, আসল ঘটনা উঠে আসুক: পরীমনি

নিজস্ব প্রতিবেদক ->> / ৫৭ বার পঠিত
সময়: শুক্রবার, ১৮ জুন, ২০২১, ২:২০ অপরাহ্ণ

সংবাদটি শেয়ার করুন:
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বোট ক্লাবে ধর্ষণচেষ্টা ও হত্যাচেষ্টার অভিযোগ তোলার পর পরীমনির বিরুদ্ধে ভাংচুরের অভিযোগ তুলেছে গুলশানের একটি ক্লাব, যা উদ্দেশ্যমূলক বলে দাবি করছেন এই চিত্রনায়িকা।

গুলশানের অল কমিউনিটি ক্লাবে যে অভিযোগ তুলেছে, তার তদন্ত চেয়ে পরীমনি বলেছেন, তাতেও ‘আসল সত্য’ বেরিয়ে আসবে।

পরীমনির মামলায় তুমুল আলোচনার মধ্যে ঢাকা বোট ক্লাবের সদস্য ব্যবসায়ী নাসির উদ্দিন মাহমুদ গ্রেপ্তার হওয়ার দুদিন বাদে বুধবার অল কমিউনিটি ক্লাবের সভাপতি, ব্যবসায়ী কে এম আলমগীর ইকবাল অভিযোগ করেন, গত ৭ জুন মধ্যরাতে পরী মনি ও তার সঙ্গীরা ক্লাবে এসে হাঙ্গামা বাঁধিয়েছিলেন।

এরপর রাতে বনানীতে নিজের বাসায় পরীমনি সাংবাদিকদের সামনে এসে বলেন, মূল ঘটনাকে অন্য দিকে ফোকাস করার জন্য উদ্দেশ্যমূলকভাবে এমন অভিযোগ করা হচ্ছে। প্লিজ সবাই আমার পাশে থাকুন। আমি মনোবল হারাতে চাই না।

এর আগে বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকেও তিনি বলেছেন, তার বিরুদ্ধে ‘চক্রান্ত’ চলছে। সেই রাতে গুলশানের অল কমিউনিটি ক্লাবে যাওয়ার কথা স্বীকার করেন পরীমনি।

সিসি টিভির ফুটেজে পরীমনির সঙ্গে তার সাবেক বাগদত্তা সাংবাদিক তামিম হাসান ও কস্টিউম ডিজাইনার জুনায়েদ করিম জিমি ও আরেক নারীকে ক্লাবে ঢুকতে দেখা গেছে।

পরীমনি বলেন, ক্লাবে কোনো অপ্রীতিকর ঘটনা যদি ঘটিয়েই থাকি, তাহলে সেটা কেন আট দিন পর আসল? তারা তো আমার মতো ভিক্টিম হননি। তাদের তো কোনো বাধা ছিল না। সাথে সাথে কমপ্লেইন করতে পারতেন।

মদ খেতে গিয়েছিলাম, এটা কি সম্ভব: পরীমনি | প্রথম আলো

অল কমিউনিটি ক্লাবে পরীমনি যাওয়ার পরদিনই রাতে উত্তরার পাশে বিরুলিয়ায় ঢাকা বোট ক্লাবে তিনি গিয়ে ‘আক্রান্ত’ হয়েছিলেন।

তার চার দিন পর তিনি প্রথমে ফেইসবুকে অভিযোগ জানান যে, ওই ক্লাবে তিনি ধর্ষণচেষ্টা ও হত্যাচেষ্টার শিকার হয়েছিলেন। পরে তিনি সংবাদ সম্মেলন করলে তা নিয়ে তোলপাড় শুরু হয়। একদিন বাদে তিনি মামলা করলে ব্যবসায়ী নাসিরকে গ্রেপ্তার করা হয়। সেই সঙ্গে গ্রেপ্তার করা হয় তুহিন সিদ্দিকী অমিকে, যিনি তাকে ক্লাবে নিয়ে গিয়েছিলেন।

পরীমনি বলেন, আমি চার দিন কিন্তু বসে থাকিনি। সবাইকে জানানোর চেষ্টা করেছি। আমি যদি কোনো অপরাধ করে থাকি তাহলে উনারা (কমিউনিটি ক্লাব) কী করেছেন? তারা কেন চুপ করে ছিলেন?

আমি যখন কমপ্লেইন করলাম, সবার বিষয়টা সামনে আনলাম, তখন কেন তারা আমার বিরুদ্ধে লাগছে? এটা তো স্পষ্ট বোঝাই যাচ্ছে।

“বিষয়টি নিয়ে যেহেতু কথা উঠেছে সেহেতু তদন্ত হোক। আসল ঘটনা উঠে আসুক,” বলেন তিনি।

পরীমনি বলেন, যারা অ্যারেক্ট হয়েছেন তাদের বিরুদ্ধে আমার পক্ষে আইনি লড়াইয়ে কে থাকবেন, তা এখনও ঠিকঠাক মতো বুঝে উঠতে পারছি না। সেখানে আমাকেই উল্টা ব্লেইম করা হচ্ছে।

যেটার (অভিযোগ) আসলে কোনো ভিত্তি নেই। আমার উপর চাপিয়ে দেওয়া হচ্ছে। একদিন পরে হোক, দুই দিন পরে হোক, সত্যি ঘটনাটা সবার সামনে আসবেই।


সংবাদটি শেয়ার করুন:
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরও সংবাদ

ফেসবুকে আমরা

Theme Customized By Theme Park BD